রাত ১০:৩৩
বন্ধ হচ্ছে গ্রামীণফোনের বিজ্ঞাপনঅধ্যাপক আনিসুজ্জামানের জন্মদিনবিরক্তিকর সহকর্মীকে মোকাবিলার কৌশল কি?আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে চলাচলে নির্দেশনাআমিরাতে চালু হচ্ছে শ্রমবাজারবিশ্ব ইজতেমা আখেরি মোনাজাতের মাধ্যমে শেষ হচ্ছে আজসংরক্ষিত নারী আসনে ৪৯ নারী সংসদ নির্বাচিতআবুধাবি পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রীদক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলের ভূমিকম্পের ৪.৭ মাত্রাগুজব শেয়ার দিলে পরিণতি হবে ভয়াবহ

বসুরহাটে হাসপাতালে ভর্তি ফেরদৌস-পূর্ণিমা

ডেস্ক: ফেরদৌস-পূর্ণিমার হাত-পা কেটে সামান্য রক্ত বের হয়েছে, হাটতেও কষ্ট হচ্ছে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে তাদের নিয়ে বসুরহাটে কেন্দ্রীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

২০১৪ সালে প্রকাশিত সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের উপন্যাস ‘গাঙচিল’ সিনেমাটি নির্মিত হচ্ছে। ইচ্ছেমত এবং নুজহাত ফিল্মসের প্রযোজনায় সিনেমাটিতে আরও অভিনয় করছেন আনিসুর রহমান মিলন, তারিক আনাম খান এবং বিশেষ চরিত্রে কলকাতার অভিনেত্রী ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত।

নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামূল পরিচালিত ‘গাঙচিল’ সিনেমার শুটিং করতে গিয়ে গুরুতর আহত হয়েছেন চিত্রনায়ক ফেরদৌস ও চিত্রনায়িকা পূর্ণিমা। রোববার (১০ ফেব্রুয়ারি) সকালে নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জের ৮ নং চর এলাহি ইউনিয়নে তারা দুর্ঘটনার শিকার হন। দু’জনই হাতে ও পায়ে প্রচণ্ড আঘাত পেয়েছেন।

নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামূল বলেন, রোববার সকালে আমরা বাইকের কিছু দৃশ্যের শুটিং করছিলাম। শুটিংয়ের প্রয়োজনে মাইক্রোবাসের পেছনে ট্রলির সঙ্গে বাইক যুক্ত করা হয়। বাইক চালাচ্ছিলেন পূর্ণিমা, ফেরদৌস ভাই ওনার পেছনে বসা ছিলেন। চলন্ত অবস্থায় হঠাৎ তারা নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বাইক নিয়ে রাস্তায় পড়ে যান। সঙ্গে সঙ্গে আমরা ছুটে গিয়ে ওনাদের উদ্ধার করি।

গত ৬ ফেব্রুয়ারি থেকে নোয়াখালীতে ‘গাঙচিল’র শুটিং শুরু হয়। এই সিনেমা মধ্য দিয়ে দীর্ঘ পাঁচ বছর পর জুটি বেঁধে বড় পর্দায় ফিরছেন ফেরদৌস-পূর্ণিমা।

Top