ভোর ৫:৪১
ফুলবাড়ীতে দু’টি ইউনিয়ন পরিষদে উন্মুক্ত বাজেট ঘোষণামাদারীপুরে র‌্যাব-৮ কর্তৃক নকল ৬টন সেমাই ধ্বংসমাদারীপুরে পদ্মায় নিখোঁজ লঞ্চ যাত্রীর লাশ উদ্ধারমমতা’র কিশোর-কিশোরী নির্বাচন কর্মশালাফরিদপুরে আটক মেছোবাঘ, দুটি পালিয়ে যাওয়ায় আতংকে এলাকাবাসীযুক্তরাষ্ট্রের সিনেটর পদে বিজয়ী বাংলাদেশি চন্দনসেহরি ও ইফতারে সঠিক খাবার নির্বাচন করা গুরুত্বপূর্ণতাসফিয়া হত্যা মামলার আসামী আশিক গ্রেফতারসালমান খানের প্রেমিকা দিশাতাজিনের কুলখানি শুক্রবার

কুড়িগ্রামে বঙ্গবন্ধু ও আ: ওয়াহাব তালুকদারের মুর‍্যাল স্থাপন

প্রথমকথা ডেস্ক: মুক্তিযুদ্ধের চেতনা এবং সঠিক ইতিহাস ‌বর্তমান ও ভবিষ্যৎ প্রজন্মের নিকটজাগ্রত রাখতে গতকাল কুড়িগ্রাম সরকারি কলেজ চত্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও শহীদ বুদ্ধিজীবী আব্দুল ওয়াহাব তালুকদারের মুর‍্যাল আনুষ্ঠানিক ভাবে স্থাপন করা হয়।

স্বাধীনতা পু্র্ববর্তীতে শহীদ আব্দুল ওয়াহাব তালুকদার বর্তমান কুড়িগ্রাম সরকারি কলেজে ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগে অধ্যাপনা করতেন। ১৯৭১ সালের মহান মুক্তিযুদ্ধে সরাসরি অংশগ্রহণ করেন এবং শহীদ হন । তিনি ৬নং সেক্টরের অধীন বামন হাট যুবশিবিরের ক‍্যাম্প ইনচার্জ হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৭১সালের ৭ই আগষ্ট দায়িত্ব পালনরত অবস্থায় পাক হানাদার বাহিনীর আক্রমণে প্রথমে ব্রাশ ফায়ারে আহত হন এবং পরে পাকহানাদার বাহিনী ধরে বেয়নেট দিয়ে খুঁচিয়ে খুঁচিয়ে নিসংশ্বভাবে হত‍্যা করে। কুড়িগ্রাম জেলায় তিনিই একমাত্র কলেজ শিক্ষক যিনি সরাসরি মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করে শহীদ হন।

বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ একই সুত্রে গাঁথা । সেই চেতনাকে ধারণ করে কলেজ কর্তৃপক্ষ ও কলেজের সাবেক কয়েকজন ছাত্র বিশেষ করে বীর মুক্তিযোদ্ধা ও জেলা আওয়ামী সভাপতি জনাব আমিনুল মন্জূ মন্ডল ও কুড়িগ্রাম জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জনাব জাফর আলীর ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু ও তার ডাকে সাড়া দিয়ে মুক্তিযুদ্ধে জীবন উৎসর্গকারী বীর শহীদের মূর‍্যাল দুটি স্থাপন করা হয়।

উক্ত অনুষ্ঠানে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামীগ সাধারণ সম্পাদক জনাব জাফর আলী, বীর মুক্তিযোদ্ধা জেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি জনাব আমিনুল ইসলাম মন্জূ মন্ডল, কলেজ অধ্যক্ষ জনাব সামশুল ইসলাম, বীর মুক্তিযোদ্ধা জেলা আওয়ামীগ সহসভাপতি জনাব আক্তারুজ্জামান মন্ডল, জেলা পুলিশ সুপার ,জেলাআওয়ামীগ সাংগঠনিকসম্পাদক জনাব
সাইদ হাসান লোবান সহ কলেজ ছাত্র-শিক্ষক কর্মকর্তা -কর্মচারী ও এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

এউদ‍্যোগের মাধ্যমে কলেজের ছাত্র শিক্ষক সহ আগামী প্রজন্মের সকলে জাতির জনককে ও অত্র প্রতিষ্ঠানের একজন শহীদ শিক্ষককে নুতন করে জানার সুযোগ পাবে বলে মনে করি । এই মহৎ কর্মের জন্য কলেজ কর্তৃপক্ষ সহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন শহীদ বুদ্ধিজীবী আব্দুল ওয়াহাব তালুকদারের সন্তান করছি।

Top