রাত ৪:৪৩
আগামী মাস থেকে এলএনজির সরবরাহ শুরু: নসরুল হামিদআম নয়, আঁটির উপকারিতা জেনে নিনদিল্লির নেতৃত্ব ছাড়লেন গৌতম গম্ভীরইউটিউব দেখে পার্সেল বোমা বানানো সেই শিক্ষক গ্রেফতারতারেকের বাংলাদেশি নাগরিকত্ব নেই : আইনমন্ত্রীছাত্রীকে এসিড ছোড়ার মামলায় একজনের যাবজ্জীবনপাসপোর্ট নিতে হলে অবশ্যই দেশে আসতে হবেতিনদিনের সফরে অস্ট্রেলিয়া পথে প্রধানমন্ত্রীরাষ্ট্রপতির টুঙ্গিপাড়া সফর স্থগিতবড়পুকুরিয়া কয়লাখনি শ্রমিক ও ক্ষতিগ্রস্তদের সংবাদ সম্মেলন

ফরিদপুরে সাবেক স্বামীর ছুরিকাঘাতে স্ত্রীর মৃত্যু

মাহবুব হোসেন পিয়াল,১০ এপ্রিল,ফরিদপুর: ঔষধ কিনে বাড়ী ফেরার সময় ওৎ পেতে থাকা সাবেক স্বামীর ছুরিকা ঘাতে মারাত্বক ভাবে আহত হয় রিক্তা বেগম (২২) নামে এক গৃহবধু। ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ে মঙ্গলবার বেলা এগারোটার দিকে তার মৃত্যু হয় ।
সোমবার রাত নয়টার দিকে ফরিদপুর চরভদ্রাসন উপজেলার পরিষদ সংলগ্ন চরভদ্রাসন মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পিছনের মাঠে তাকে ছুরিকাঘাত করা হয়। স্থানীয়রা এসময় তাকে উদ্ধার করে চরভদ্রাসন স্বাস্থ্য কমেপ্লেক্সে ভর্তি করেন। পরে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
চরভদ্রাসন বাজারের ঔষুধ ব্যবসায়ী মো: ইউসুফ আলী জানান, গত মার্চের ৮ তারিখে সদরপুর থানার বাবুরচর খালাশী ডাঙ্গী গ্রামের আলী আহমেদের পুত্র শাহ জালাল এর কাছে আমি বাসা ভাড়া দেই। জালাল তাকে সদরপুর বাজারে জান্নাত সুইং নামে একটি দোকানের স্বত্বাধিকারী বলে জানায়। রিক্তা তার স্ত্রী এমন পরিচয় দেয়।
তিনি বলেন, ঘটনার রাতে রিক্তা তার দোকন থেকে ঔষুধ নিয়ে বাড়ী ফেরার সময় তার পূর্বের স্বামী ছুরি দিয়ে আঘাত করে। রিক্তার চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা তাকে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে আসে। এসয় তার পেটে বিধে থাকা ছুরিটি বের করে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।
মুমূর্ষ রিক্তার কাছে উপস্থিত অনেকেই জানতে চায় তাকে কে ছুরি মেরেছে। এ সময় সে শুধু বলে “আলমগীর স্বামী”।
তার বর্তমান স্বামী জালাল বলেন, তার দোকানে পোশাক তৈরী করতে এসে পরিচয় সদরপুর উপজেলার খেজুর তলার বিশ্বাস ডাঙ্গী গ্রামের কালাম মোল্যার মেয়ে রিক্তার সাথে। সম্পর্কের এক পর্যায়ে দুজন গোপনে বিয়ে করে। পরে চরভদ্রাসনে বাসা ভাড়া করে দিয়ে রিক্তাকে ভরন পোষন দিতে থাকে জালাল। রিক্তা তার প্রথম স্বামীকে তালাক দিয়েছে বলে জালাল দাবী করেন। সে আরও দাবী করে তার প্রথম স্ত্রী খুশি বেগম (২৪) প্রথমে না জানলেও পরে সে সহ পরিবারের সবাই বিষয়টি মেনে নিয়ে রিক্তাকে বাড়ী নেওয়ার প্রক্রিয়া করছিল।
চরভদ্রাসন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রাম প্রসাদ ভক্ত ঘটানার সত্যতা স্বীকার করে বলেন আলমগীরের বাড়ী কুষ্টিয়ার দৌলতপুর থানার খরিবোনা গ্রামে। তাকে আটকের চেষ্টা চলছে। এ ব্যপারে একটি হত্যা মামলা প্রক্রিয়াধীন আছে।
চরভদ্রাসন থানা সুত্রে জানা যায়, রিক্তা প্রেম করে ছয় বছর আগে আলমগীরকে বিয়ে করে। রাহুল নামে আলমগীরের পাঁচ বছরের একটি ছেলে রয়েছে।

Top